হঠাৎ বিচ্ছেদের খবর এষার!

সম্পর্ক ভাঙছে ধর্মেন্দ্র ও হেমা মালিনীর বড় মেয়ে এষা দেওলের। হিরা ব্যবসায়ী ভরত তখতানির সঙ্গে ১২ বছরের দাম্পত্যে ছেদ পড়তে চলেছে। বিচ্ছেদের খবরে যৌথ সিলমোহর দিয়েছেন এষা এবং তার স্বামী ভরত। এই খবরে অনুরাগীরাও খানিকটা অবাক হয়েছেন। 

কারণ এষা আর ভরতের সম্পর্কের ওঠানামা কখনই তেমন প্রকাশ্যে আসেনি। বরং অনেক সাক্ষাৎকারে তাদের দুজনকে একসঙ্গে দেখে যথেষ্ট সুখী দাম্পত্য যাপন করছেন বলেই মনে হয়েছে। শুধু তাই নয়, যখনই এষা ও ভরত পাশাপাশি বসে সাক্ষাৎকার দিয়েছেন, পরস্পরের প্রশংসায় পঞ্চমুখ হয়েছেন দুজনে। 

একটি সাক্ষাৎকারে এষা বলেছিলেন, ভরতের মতো আবেগপ্রবণ মানুষ আমি কম দেখেছি। এষা জীবনে আসায় তিনি কতটা খুশি সেটাও নিজের মুখেও জানিয়েছিলেন ভরত। সেই সুখী দাম্পত্যের ছবিতে এমন চিড় ধরেছে, সেটা মেনে নিতে কষ্ট হচ্ছে অনুরাগীদের।

২০১২ সালে এষা ও ভরত বিয়ে করেন। তার আগে তাদের প্রেমের সম্পর্ক বহু দিনের। বিয়ের পর পরিপাটি সংসার ছিল দুজনের। বিয়ের পাঁচ বছরের মাথায় তাদের প্রথম সন্তান রাধ্যা জন্মায়। তার দুবছর পর ঘরে আসে দ্বিতীয় সন্তান মীরা। দুই মেয়েকে নিয়ে ব্যস্ত হয়ে প়ড়েন এষা। আর তখন থেকেই নাকি একটু একটু করে ভাঙন ধরতে শুরু করে সম্পর্কে। 

তবে নিজেদের সম্পর্কের সমীকরণ প্রকাশ্যে আনতেন না দুজনের কেউ। গত বছরের মাঝামাঝি সময় থেকেই সবর্ত্র একা দেখা যায় এষাকে। পাশে ছিলেন না ভরত। তখন থেকেই গুঞ্জন বিচ্ছেদের শোনা যাচ্ছিল।

LEAVE A REPLY